1. shohelparis@yahoo.com : oporajitobangla :
  2. banglahost.net@gmail.com : rahad :
জাতিসংঘের গৃ‌হীত প্রস্তা‌বে রোহিঙ্গাদের প্রত্যাবাসনের সুপা‌রিশ না থাকায় হতাশ বাংলা‌দেশ। - Oporajito Bangla
রবিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৮:০৭ পূর্বাহ্ন
শিরোনামঃ
প্রশ্ন‌বিদ্ধ সৃজনশীল প্রশ্নপদ্ধতি’। নারী গণমাধ্যমকর্মী শ্লীলতাহানি মামলায় জা‌মিন পে‌লেন কাউন্সিলর চিত্তরঞ্জন দাস। তালেবানের নিষ্ঠুরতার নিন্দায় জাতিসংঘ। যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে নতুন করে সম্পর্ক উন্নয়‌নের কথা বললেন শি। তালেবানরা আফগান নারী ক্রি‌কেট‌কে সমর্থন না দি‌লে অস্ট্রেলিয়া টেস্ট সি‌রিজ বা‌তিল কর‌বে। বসিলায় জঙ্গি আস্তানা থেকে গ্রেফতার ১, অস্ত্র-বিস্ফোরক দ্রব্য উদ্ধার। দেশে এ পর্যন্ত ক‌রোনার ‌টিকা প্র‌য়োগ ৩ কোটি ২৭ লাখ ২৪ হাজার ৪০১ ডোজ। সাঈদ মাহমুদ বেলাল হায়দার পারভেজ’‌কে অতিরিক্ত সচিব পদে পদোন্নতি। নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে বাংলা‌দে‌শের সিরিজ জয়। দুই মেয়ের সঙ্গে মা জাপানি নারী থাকা ও বেড়া‌তে যাবার আদেশ হাই‌কো‌র্টের।

জাতিসংঘের গৃ‌হীত প্রস্তা‌বে রোহিঙ্গাদের প্রত্যাবাসনের সুপা‌রিশ না থাকায় হতাশ বাংলা‌দেশ।

রিপোর্টারের নাম
  • আপডেট টাইম : রবিবার, ২০ জুন, ২০২১

জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদে গৃহীত রেজুলেশনে রোহিঙ্গাদের প্রত্যাবাসনে কোনো সুপারিশ বা পদক্ষেপ অন্তর্ভুক্ত না করায় হতাশা প্রকাশ করেছে বাংলাদেশ।

শুক্রবার (১৮ জুন) মিয়ানমার ইস্যুতে জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদে একটি প্রস্তাব গ্রহণ করা হয়। এতে রোহিঙ্গাদের নিজ ভূম রাখাইন থেকে বিতাড়িত করা এবং বাংলাদেশে আশ্রিত রোহিঙ্গাদের প্রত্যাবাসনের বিষয়ে কোনো সুপারিশ বা পদক্ষেপের কথা উল্লেখ করা হয়নি।

এরপরই জাতিসংঘে ঢাকার অবস্থান প্রসঙ্গে বাংলাদেশ স্থায়ী মিশন জানায়, জাতিসংঘের প্রস্তাবটিতে রোহিঙ্গাদের মিয়ানমারে প্রত্যাবাসন ইস্যুতে কোনো সুপারিশ বা পদক্ষেপ অন্তর্ভুক্ত করা হয়নি। নিরাপদ, টেকসই এবং মর্যাদাপূর্ণ প্রত্যাবর্তনের জন্য রাখাইনে অনুকূল পরিবেশ তৈরির প্রয়োজনীয়তার ওপর স্বীকৃতি বা জোর দেওয়া হয়নি। এতে সম্মিলিত উপায়ে রোহিঙ্গা সঙ্কটের মূল কারণগুলো সমাধানের দৃঢ় সংকল্পেরও অভাব রয়েছে।

যেহেতু এ জাতীয় মৌলিক বিষয়গুলো রেজুলেশনে অন্তর্ভুক্ত ছিল না। সুতরাং মিয়ানমারের বিরুদ্ধে জাতিসংঘের প্রস্তাবনায় বিরত থাকার সিদ্ধান্ত নেয় বাংলাদেশ।

জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদে রেজুলেশনে মূলত, মিয়ানমারের কাছে অস্ত্র বিক্রি ওপর নিষেধাজ্ঞা, সামরিক জান্তার নির্বাচিত সরকারকে উৎখাত করা, সামরিক জান্তার ক্ষমতা গ্রহণে নিন্দা জানিয়ে প্রস্তাবটি গ্রহণ করা হয়। একইসঙ্গে অং সান সু চিসহ রাজনৈতিক বন্দিদের মুক্তি এবং শান্তিপূর্ণ বিক্ষোভকারীদের ওপর সহিংসতা বন্ধের আহ্বান জানিয়েছে জাতিসংঘ।

‘দ্য সিচুয়েশন ইন মিয়ানমার’ ওই খসড়া প্রস্তাবের পক্ষে ভোট দেয় ১১৯টি দেশ। বাংলাদেশ, ভারতসহ ৩৬টি দেশ ভোট দেওয়া থেকে বিরত থাকে। তবে প্রস্তাবের বিরুদ্ধে একমাত্র বেলারুশ ভোট দেয়।

২০১৭ সালের ২৫ আগস্ট রাখাইনে সেনা অভিযান শুরুর পর কয়েক মাসের মধ্যে ৭ লাখের বেশি রোহিঙ্গা বাংলাদেশে এসে আশ্রয় নেয়। আগে থেকে বাংলাদেশে ছিল আরও চার লাখ রোহিঙ্গা। আন্তর্জাতিক চাপের মধ্যে মিয়ানমার সরকার রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে ২০১৭ সালের শেষ দিকে বাংলাদেশের সঙ্গে চুক্তি করলেও সেই প্রত্যাবাসন আজও শুরু হয়নি।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

ফেসবুকে আমরা..